১০০% খাঁটি মধু চেনার উপায়!নির্ভুল ভাবে ঘরোয়া পদ্ধতিতে সহজভাবে মধু পরীক্ষা করুন

posted in: Uncategorized | 0

৩ বছরের মধু ব্যবসার জীবনে একটু একটু করে শিখছি।
১.আগুন পরীক্ষা:-চিনি মিশ্রিত মধু দিয়ে কাগজ মাখিয়ে আগুন লাগিয়ে দিলে পট পট শব্দ করে, হালকা ধুঁয়া বা আগুন জ্বলার প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি হয়।চিনির শিসা হলে তে জ্বলবেই না।
২.পিপড়া মধু খায় না:-অনেকেই বলে পিঁপড়া দিয়ে মধু পরীক্ষা করা সম্পূর্ণ ভুল পদ্ধতি!! তাদের বলি ভাই আপনিই ভুল।আমি নিজে পরীক্ষা করে দেখেছি মধুতে খুবই কম পিপড়া আসে। আসে না বললেই চলে কিন্তু আপনি চিনির সিরা কিংবা বোয়াম রেখে দেখবেন সেখানে পিপড়া আসবে এবং ৯৭% পিপড়া চিনির বোয়ামে বসবে।অবশ্য পিপড়া মধু খায় না এটা সঠিক নয়।মধুর ঘ্রাণ পিপড়া ডিটেক করতে পারে না এজন্য পিপড়া চিনির মত মধুতে ঐভাবে বসে না।
৩.প্রাকৃতিক চাকের মধুতে ফেনা হয়।ঝাকি দিলে উড়ে যায় এত পরিমান ফেনা হয়। কেউ যদি চাষের মধু প্রাকৃতিক চাকের মধু বলে দেওয়া চেষ্টা করে তাহলে ফেনার পরিমান দেখে সেটা বোঝা যায়।তারপর আসে মধু জমার বিষয়,সরিষা এবং ধনিয়া ফুলের মধু সাদা হয় এবং জমে যায়
প্রাকৃতিক চাকের খাঁটি মধুও (সরিষার মৌসুমে) জমে যায়।
৪.মধু উত্তম প্রিজারভেটিভ।মধু ছায়া এবং শীতল জায়গায় রাখায় সর্বোত্তম।পানির গ্লাস বা বোতলে খাঁটি মধু ঢাললে নিচে তলায় পড়বে এবং পরদিন সকালে খেলেও উপরের পানি কম মিষ্টি লাগবে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *